পাঁচমিশেলিমহানগর বার্তারাজ্য বার্তা

কলকাতার থিমের পুজো এবার জেলার কালী বা জগদ্ধাত্রী পুজোয়

নিউজ ডেস্ক: কলকাতার থিমের পুজোর এবার পৌঁছতে চলেছে জেলায় জেলায়। দুর্গা পুজো শিল্পীদের তৈরি মণ্ডপের দেখা মিলবে জেলার কালী বা জগদ্ধাত্রী পুজোয়। ইতিমধ্যে কলকাতার পুজো উদ্যোক্তাদের সঙ্গে কথা শুরু হয়েছে জেলার পুজো উদ্যোক্তাদের।

সূত্রের খবর, বেশ কয়েকটি মণ্ডপ কোথায় যাবে তা নিয়ে ইতিমধ্যেই কথা হয়ে গিয়েছে। সুরুচি সঙ্ঘের মণ্ডপ যেতে পারে পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দকুমারে। সেখানে একটি কমিটির সঙ্গে কথা চলছে বলে জানিয়েছেন পুজোর সম্পাদক স্বরূপ বিশ্বাস।

বেহালার নতুন দলের ফুচকা মণ্ডপ যাচ্ছে চন্দননগরের একটি জগদ্ধাত্রী পুজোয়। গোটা মণ্ডপটি খুলে নিয়ে যাচ্ছেন পুজো উদ্যোক্তারা। মণ্ডপ নির্মাণ শিল্পীদের প্রশিক্ষণ দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে ফুচকা দিয়ে বানানো হয় এই মণ্ডপ। প্রায় ৮০ হাজার ফুচকা দিয়ে এই মণ্ডপ বানানো হয়েছিল। ফুচকাগুলিকে সংরক্ষণের জন্য বিশেষ কেমিক্যাল মাখানো হয়। প্রচুর দর্শনার্থী ভিড় করেন এই মণ্ডপ দেখতে। এবার তা দেখা যাবে চন্দননগরের একটি জগদ্ধাত্রী পুজোয়। এছাড়া তেলেঙ্গাবাগান ও সমাজসেবীর পুজো যেতে পারে চন্দননগরে।

জানা গিয়েছে, কলেজ স্কোয়ার সর্বজনীনের পুজো মণ্ডপ এবার দেখা যাবে নদিয়ায়। শান্তিপুরের রাশ উৎসবে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে মাইসোর প্যালেসের আদলে তৈরি মণ্ডপ। এছাড়া গুজরাটের সোমনাথ মন্দিরের আদলে তৈরি আহিরিটোলা সর্বজনীনের মণ্ডপ নিয়ে যাওয়া হচ্ছে চাকদায়।

অন্যদিকে দমদম পার্ক তরুণ সঙ্ঘের মণ্ডপ যেতে পারে চন্দননগরের একটি জগদ্ধাত্রী পুজোয়। কাঁথির একটি কালীপুজোয় যাচ্ছে চালতাবাগান লোহাপোট্টির পুজো। বাংলার হারিয়ে যাওয়া নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস দিয়ে এই মণ্ডপটি তৈরি হয়। এছাড়া বালিগঞ্জ কালচারালের পুজো মণ্ডপটি যাচ্ছে শিলিগুড়ির একটি কালীপুজোয়।

তবে সব চাইতে বেশি বড় দর চোরবাগান সর্বজনীন থিম। সূত্রের খবর মণ্ডপের দাম ৩৫ লক্ষ টাকা ধরা হয়েছে। যদিও সেই মণ্ডপ কোথায় যাচ্ছে এখন ও কিছু ঠিক হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *