পলিটিক্সমহানগর বার্তারাজ্য বার্তা

রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাতের উদ্দেশ্যে উত্তরবঙ্গ রওনা তৃণমূল তিন হেভিওয়েট নেতা

নিউজ ডেস্ক: রাজ্যপাল আগেই জানিয়েছিলেন তাঁর সঙ্গে শাসকদলের কেউ যদি দেখা করতে চান, তাহলে তাঁকে উত্তরবঙ্গে আসতে হবে। উত্তরবঙ্গের ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে রাজ্যপাল এখন উত্তরবঙ্গে আছেন।

এই আবহে শনিবার তৃণমূলের ৩ জন সদস্য রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করতে উত্তরবঙ্গ রওনা দিলেন। যদিও মূল প্রতিনিধি দলের সঙ্গে কলকাতায় ফিরে তাঁকে দেখা করতেই হবে। এবং তা যত দিন না হচ্ছে, তত দিন তিনি ধর্না থেকে উঠবেন না বলেও জানিয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দোপাধ্যায়।

শনিবার তৃণমূলের তরফে রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাত করতে গেলেন রাজ্যের পঞ্চায়েত মন্ত্রী প্রদীপ মজুমদার এবং দুই সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়, মহুয়া মৈত্র।

অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, সকালের বিমানে কলকাতা থেকে বাগডোগরার উদ্দেশে রওনা দেবেন তাঁরা। সাক্ষাৎ পর্ব সেরে রবিবার ফিরে আসবেন। অভিষেক রাজ্যপালের উদ্দেশে ধর্নামঞ্চ থেকে শুক্রবার সন্ধ্যায় বলেন,”আপনি যদি মনে করেন পুজো কাটিয়ে ফিরবেন, তা হলে তা-ই হবে। সপ্তমী, অষ্টমীতে আমি একা বসে থাকব। আপনারা শুধু পাশে থাকলেই হবে।”

রাজনৈতিক মহলের পর্যবেক্ষণ এই পদক্ষেপের মধ্য দিয়ে অভিষেক বন্দোপাধ্যায় দু’টি বার্তা দিলেন। প্রথমত দার্জিলিঙে ৩ দলীয় নেতা-নেত্রীকে পাঠিয়ে তৃণমূল সৌজন্যের বার্তা দিল। দুই, রাজনৈতিক লড়াইয়ের জমি ছাড়া হবে না, তাও বুঝিয়ে দিলেন তিনি। কলকাতায় এসে রাজ্যপাল দেখা না করা পর্যন্ত তিনি রাজভবনের সামনের ধর্না থেকে উঠছেন না।

তৃণমূল সূত্রের খবর, এই প্রতিনিধি দল মূলত রাজ্যপালের সাথে সাক্ষাত্‍ করে দেখা করার সময় চাইবেন। অভিষেক বন্দোপাধ্যায় জানিয়েছেন, “বাংলার রাজ্যপাল। রাজ্যপাল পদকে সমর্থন করি। আর বাংলা শব্দটা জুড়ে আছে। তাই সৌজন্যের খাতিরে তিন সদস্য দেখা করবেন রাজ্যপালের সঙ্গে।” রাজনৈতিক মহলের মতে, কেন্দ্রের বকেয়ার দাবিতে আন্দোলন ঘিরে গ্রামের মানুষের মন পাওয়া গেছে। বিজেপি এতে রাজনৈতিক ভাবে চাপে আছে। তাই এই আন্দোলন নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেস রীতিমতো অঙ্ক কষে এগোচ্ছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *